Home অন্তর্জাতিক বিশ্বের অনিন্দ্যসুন্দর ছয় ট্রি-হাউজ

বিশ্বের অনিন্দ্যসুন্দর ছয় ট্রি-হাউজ

0 408

বসন্তের সবুজ পাতা, সঙ্গে ঝিরিঝিরি বাতাস মিলে কেমন যেন একটা মর্মর ধ্বনি তৈরি করে। এই সময়টাতে মনে হয় শহুরে ব্যস্ততাকে ছুটি দিয়ে খানিকটা সময় যদি ট্রি-হাউজে কাটিয়ে আসা যেত, মন্দ হতো না। আজকাল বিদেশি কিছু ট্রি-হাউজ বিশ্বের বিলাসবহুল হোটেলের সৌন্দর্য ও আতিথেয়তাকেও হার মানিয়েছে। ট্রি-হাউজে অবকাশযাপন একদিকে যেমন প্রশান্তি এনে দেয়, অন্যদিকে প্রকৃতিকে খুব কাছ থেকে দেখার সুযোগ মেলে। বিশ্বের আধুনিক সৌন্দর্যমন্ডিত ছয়টি ট্রি-হাউজ নিয়ে আমাদের এবারের আয়োজন।

লুলেয়া ট্রি-হোটেল, সুইডেন
হোটেলটি প্রথমবার দেখলে মনে হবে কাচের তৈরি কোনো বাক্স গাছে ঝুলছে। বাদুড় তাড়াতে আমরা যেমন গাছে মুড়ির টিন ঝুলিয়ে রাখি, লুলেয়া ট্রি হোটেলটির অবয়ব বাইরে থেকে দেখতে অনেকটা তেমনই। স্থপতি থাম এবং ভিডগার্ডের ডিজাইন করা সুইডেনের লুলেয়া ট্রি-হোটেলের দেয়াল এবং জানালার কাচ আয়না দিয়ে প্রতিফলিত। যাতে ট্রি-হাউজের চারপাশে একটা সবুজের আবহ বজায় থাকে। ভূমি থেকে ৪০ ফুট উঁচু একটি কাঠের সিঁড়ি দিয়ে ট্রি-হাউজে যাওয়ার প্রবেশপথ বানানো হয়েছে। অ্যালুমিনিয়ামের বেজ ফ্রেমকে কাঠামো হিসেবে ব্যবহার করে ট্রি-ট্যাঙ্কসদৃশ হোটেলটিকে একটি অত্যাধুনিক প্যানারমিক ভিউ দেয়া হয়েছে। যেখানে প্রকৃতি আর বুনো কল্পনা দৌড়ে বেড়ায় সারাক্ষণ।

প্রিমল্যান্ড ট্রি-হাউজ, ভার্জিনিয়া
বিশাল কাঠের তক্তপোষের উঠোন ঘেরা প্রিমল্যান্ড ট্রি-হাউজ ভার্জিনিয়ার ব্লু রিজ পর্বতমালার অন্তর্গত ১২ হাজার একর ভূমি নিয়ে অবস্থিত। নিরিবিলি একান্তে সময় কাটানোর জন্য এই ট্রি-হাউজটিকে আদর্শ জায়গা বলা যেতে পারে। গাছের উঁচু ও শক্ত ডালপালার চারপাশে কেবিনগুলো বানানো হয়েছে। যেখান থেকে কিবলার ভ্যালি এবং উত্তর ক্যারোলিনার পাদদেশ পুরোটাই দেখা যায়। প্রিমল্যান্ডের প্রতিষ্ঠাতা ডিডিয়ার প্রাইমেট তার পরিবেশবান্ধব ট্রি-হাউজটিতে বিশ্বমানের গলফ কোর্স, ঘোড়দৌড়, মাছ ধরার সুবিধাসহ আরও অনেক আউটডোর খেলাধুলার ব্যবস্থা রেখেছেন। প্রিমল্যান্ড ট্রি-হাউজের সুপরিসর আধুনিক ডাইনিং সবাইকে অবাক করে দেয়।

ফরেস্ট ভিউ ট্রি-হাউজস্টুডিও, তোলা, নিকারাগুয়া
পুরনো বাংলোবাড়িসদৃশ ফরেস্ট ভিউ ট্রি-হাউজ স্টুডিও ছবির মতো সুন্দর। নিকারাগুয়ার এই ট্রি-হাউজটিতে এলে জীবনের অন্যরকম মানে খুঁজে পাবেন। নিকারাগুয়ার দক্ষিণ জঙ্গলে অবস্থিত ফরেস্ট ভিউ ট্রি-হাউজটি সৈকত শহর গিগ্যান্ট থেকে খানিকটা দূরে। যারা নাইট লাইফ এবং সার্ফিং পছন্দ করেন তাদের জন্য ট্রি-হাউজটি আদর্শ। স্থানীয় উৎস থেকে সংগৃহীত কাঠ ও অন্যান্য উপাদান দিয়ে ট্রি-হাউজটি তৈরি। ফরেস্ট ভিউ ট্রি-হাউজ স্টুডিওটি অ্যাকুয়া ওয়েলনেস রিসোর্টের একটি অংশ। এটি থেকে অতিথিরা খুব সহজেই বানর এবং গ্রীষ্মমন্ডলীয় পাখিদের জীবনাচরণ উপভোগ করতে পারেন।

হ্যাপুকু লজ ট্রি-হাউজ, কাইকৌরা, নিউজিল্যান্ড
সিলেটের জাফলং থেকে দাঁড়িয়ে আমরা ওপারের ডাউকি বর্ডারে পাহাড়ের ওপর যে রকম ছোট ছোট বাড়ি-ঘর দেখি, নিউজিল্যান্ডের হ্যাপুকু ট্রি হাউজ অনেকটা সেই ধাচের। পাহাড়ের ওপর নির্মিত ছোট ছোট ঘরের চারপাশ ঘিরে রয়েছে গাছপালার সবুজ বেষ্টনী। নিউজিল্যান্ডের দক্ষিণ দ্বীপের পূর্ব উপকূলের কাইকৌরা পর্বতমালার অনিন্দ্যসুন্দর দৃশ্য উপভোগ করার উপযোগী করে স্থপতি টনি উইলসন হ্যাপুকু লজ ট্রি-হাউজটি বানিয়েছেন। ট্রি-হাউজের কক্ষগুলো তৈরির মূল উপাদান স্থানীয় জঙ্গল থেকে সংগৃহীত পুনঃব্যবহৃত ও পাহাড় থেকে উদ্ধারকৃত কাঠ। নিউজিল্যান্ডের কাইকৌরা অঞ্চলের তীব্র শীত থেকে বাঁচতে ট্রি-হাউজের কক্ষগুলোতে কার্যকর ফায়ার প্লেস রাখা হয়েছে। স্থানীয় কৃষকরাই খাবারসহ অন্যান্য নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি ট্রি-হাউজটিতে সরবরাহ করে থাকেন।

সিক্রেড জিওম ট্রি-হাউজ, মন্টেজুরা, কোস্টারিকা
ট্রি-হাউজের কথা শুনলে আমাদের কল্পনায় যে রকম ছবি ভেসে ওঠে, সিক্রেড জিওম ঠিক সেই রকমই। বড় দুটি গাছের মগডালে কাঠ, বাঁশ আর খড় দিয়ে তৈরি ট্রি-হাউজ দুটি আবার যুক্ত করা হয়েছে ছোট একটি কাঠের ব্রিজ দিয়ে। চাইলেই কফির মগ হাতে ছোট ব্রিজটিতে দাঁড়িয়ে চারপাশের সবুজ উপভোগ করতে পারেন। আনমনে আউড়ে নিতে পারেন প্রিয় কবিতার কোনো পঙতি বা গান। মাটি থেকে পনের ফুট উঁচুতে অবস্থিত ঘরগুলোতে যেতে ব্যবহার করতে হয় মই। চারটি ওপেন এয়ার অবকাঠামো নিয়ে সিক্রেড জিওম ট্রি-হাউজটি গঠিত। যার মধ্যে আছে ঝুলন্ত বিছানাসহ ঝুলন্ত একটি বেডরুম, একটি রান্নাঘর, শাওয়ারসহ বাথরুম এবং প্রাকৃতিক দৃশ্য অবলোকন করার জন্য ৩৬০ ডিগ্রি অ্যাঙ্গেলের একটি অবকাশযাপন কক্ষ।

চ্যা ক্রিক, সান ইগনাসিও, বেলিজ
কাঠের পাটাতনের ওপর ছন দিয়ে ঘেরা ঘর। বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক ও গ্রামীণ পটভূমিতে এ রকম ঘর খুবই স্বাভাবিক। গ্রামে অনেকে হয়তো দেখেছেনও এ রকম ঘর। কিন্তু সান ইগনাসিওর বেলিজে যদি এ রকম কাঠের পাটাতনে ছন দিয়ে ঘেরা ঘর আপনার চোখে পড়ে, তখন কী করবেন?
খানিকটা অবাক হবেন হয়তো। সোল্লাসে পাশের সঙ্গী বা সঙ্গীনিকে দেখাতে চাইবেন গ্রামীণ আদলে গড়ে ওঠা বিলাসবহুল চ্যা ক্রিক ট্রি-হাউজ। কাঠের পাটাতনের ওপর ছনের ছাউনিঘেরা চ্যা ক্রিক ট্রি-হাউজটি নান্দনিকতা আর সৌন্দর্যে যেকোনো বিলাসবহুল হোটেলকে হারিয়ে দিতে পারে। ম্যাকল নদীবেষ্টিত বেলিজের স্যান ইগনাসিও জঙ্গলে অবস্থিত চ্যা ক্রিক ট্রি-হাউজে প্রচুর পরিমাণ বন্যপ্রাণীর দেখা পাওয়া যায়। যার মধ্যে টাক্কান, তোতাপাখি এবং অন্যান্য গ্রীষ্মমন্ডলীয় পাখি রয়েছে। এসব বন্যপ্রাণীর জীবনাচরণ দেখতে চাইলে চ্যা ক্রিক ট্রি-হাউজ হতে পারে আদর্শ জায়গা। এ ছাড়াও রিসোর্টটি তাদের অতিথিদের জন্য ব্যক্তিগত সুইমিংপুল, জঙ্গলে সার্ফিং, হর্স রাইড, গলফ খেলাসহ আরও অনেক বিনোদন-প্যাকেজ অফার করে থাকে।

কারিকা ডেস্ক

NO COMMENTS

Leave a Reply