Home মূল কাগজ কর্পোরেট অ্যাফেয়ার্স স্যানমার আরাস প্যালেসে হোক রাজকীয় যাপন

স্যানমার আরাস প্যালেসে হোক রাজকীয় যাপন

রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার বি ব্লকের ১০ নম্বর সড়কে গড়ে উঠছে হাল আমলের রাজকীয় আবাস ‘স্যানমার আরাস প্যালেস’। আধুনিক স্থ্যপত্য নকশায় নির্মিত ৯ তলা আবাসিক ভবনটির সবগুলো ফ্ল্যাটই দক্ষিণমুখী। তাই, গ্রীম্মের দুঃসহ গরমে বইবে দক্ষিণা হাওয়া। প্রাণ জুড়ানোর পাশপাশি আলোকিত হবে পুরো ঘর। সেই সঙ্গে কাঠ-পাথরের ব্যস্ত এ নগরীতে উপভোগ করা যাবে সূর্যোদয় কিংবা অপরুপ চাঁদের আলো।
রাজকীয় এ ভবনটিতে আছে তারকা হোটেলের সুবিধা সম্বলিত ক্লাব হাউস, সম্পূর্ণ সুসজ্জিত জিম, বিলাস বহুল পেন্ট হাউস, বিবিকিউ জোন, রুফটপ গার্ডেন, রিফ্রেশিং সুইমিংপুলসহ বিলাস বহুল জীবন যাপনের সব আয়োজন। বাড়তি পাওনা হিসেবে আছে ৯ তলার ওপর থেকে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার আলো ঝলমল নাইটভিউ। দিনে কিংবা রাতে ভবনটির বাইরের মনোরম প্রাকৃতিক দৃশ্য ও আলো ঝলমল নাইটভিউ যে কারো মন ভালো করে দেয়।
গ্রাউন্ডফ্লোর,রুফটপসহ ৯ তলা আবাসিক এই ভবনটিতে পেন্ট হাউজসহ মোট ইউনিট আছে ৩০টি। আরাস প্যালেস আবাসিক ভবনটির প্রতি ফ্লোরে ৫ ক্যাটাগরীর পাঁচটি ইউনিট আছে।
ইউনিট এ’তে ১৯২৫ ও ১৮৩৫ বর্গফুট, ইউনিট বি’তে ১৭৬৫ বর্গফুট, ইউনিট সি’তে ১৭৭৫ বর্গফুট, ইউনিট ডি’তে ১৯২৫ বর্গফুট, ইউনিট ই’তে ৩৮৪৫ বর্গফুট। প্রকল্পে মোট জমির পরিমাণ ১৫ কাঠা। আরাস প্যালেসের প্রতিটি ইউনিটেই আছে সুপরিসর ড্রইং, ডাইনিং, লিভিং রুম, কিচেন ও বাথরুম।
আরাস প্যালেসের শোবার ঘরের নকশা এমনভাবে করা হয়েছে যাতে সেখানে সবসময় শান্ত-সুনিবিড় পরিবেশ বজায় থাকে। শোবার ঘরের নকশা, ইন্টেরিয়র ডিজাইন এবং রুচিশীল আসবাবের অপূর্ব সমন্ধয় আরামদায়ক যাপনের পাশাপশি নিশ্চিত করবে আভিজাত্য। ড্রইং, ডাইনিং এবং বাথরুমের ক্ষেত্রেও তাই।
আরাস প্যালেসের আধুনিক সুযোগ সুবিধা সম্পন্ন পেন্টহাউস, ক্লাব হাউস এবং সুইমিং পুল অনান্য আবাসন প্রকল্প থেকে এই আবাসন প্রকল্পটিকে অনন্য করেছে। ক্লাব হাউস, রুফটপ গার্ডেন, বার-বি-কিউ জোন হতে পারে বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠানসহ অবকাশ যাপনের আর্দশ জায়গা। এছাড়াও আরাস প্যালেসের সুসজ্জিত-সুপরিসর লবি ভবনটিতে বসবাসকারী ও অতিথিদের উঞ্চ অর্ভ্যথনা জানাবে। বর্তমান সময়ে নিরাপত্তা অন্যতম দুশ্চিন্তার বিষয়। আরাস প্যালেসের বাসিন্দারা এক্ষেত্রে থাকতে পারেন একদম ভাবনাহীন। কারণ, ভবনটিতে সার্বক্ষনিক সিসিটিভির নজরদারিসহ আছে নিরাপত্তার আধুনিক সব ব্যবস্থা।
আবাসন প্রকল্পের হাতের নাগালেই ব্যাংক, বীমা, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ সকল নাগরিক সুবিধা পাওয়া যাবে সহজেই।
তো, স্যানমার আরাস প্যালেসে কবে গড়ছেন আপনার স্বপ্নের নীড়!
কারিকা ডেস্ক

NO COMMENTS

Leave a Reply